1. admin@sylhetbhumi24.com : admin :
মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০২:৫৩ অপরাহ্ন
নোটিশ :
দুবাই প্রবাসী আশিকের বিশাল সিন্ডিকেট  নারী পাচার, অবৈধ স্বর্ণ ও হোন্ডি ব্যবসা করে রাতারাতি কোটিপতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব ছড়ালে ব্যবস্থা মনিটরিং করছে পুলিশ, শ্রীমঙ্গল উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা মোঃ শরিফ উদ্দিন এর নির্দেশনা শারদীয় দুর্গাপূজা নিরাপত্তায় প্রধান করছে আনসার ভিডিপি মো:ইমরান হোসেন শ্রীমঙ্গলে প্রতিমা বিসর্জন এর মাধ্যমে শেষ হল দুর্গাপূজা আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী মাহবুব মিয়ার সমর্থনে জনতার ঢল হুমায়ুন রশিদ চত্তর থেকে ০৩ ছিনতাইকারী গ্রেফতার শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাচনে নৌকার পালে হাওয়া শিক্ষাক্ষেত্রে এখনও আমরা পিছিয়ে আছি : জগন্নাথপুরে পরিকল্পনামন্ত্রী কিশোরী পান্নাকে স্ত্রীর মতো ভোগ করতেন মোবাশ্বির, ক্ষোভ থেকে খুন! সাইবার ট্রাইব্যুনালে গোলাপগঞ্জের হাসিনা আহাদসহ আসামী ৪
শিরোনাম :
দুবাই প্রবাসী আশিকের বিশাল সিন্ডিকেট  নারী পাচার, অবৈধ স্বর্ণ ও হোন্ডি ব্যবসা করে রাতারাতি কোটিপতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব ছড়ালে ব্যবস্থা মনিটরিং করছে পুলিশ, শ্রীমঙ্গল উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা মোঃ শরিফ উদ্দিন এর নির্দেশনা শারদীয় দুর্গাপূজা নিরাপত্তায় প্রধান করছে আনসার ভিডিপি মো:ইমরান হোসেন শ্রীমঙ্গলে প্রতিমা বিসর্জন এর মাধ্যমে শেষ হল দুর্গাপূজা আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী মাহবুব মিয়ার সমর্থনে জনতার ঢল হুমায়ুন রশিদ চত্তর থেকে ০৩ ছিনতাইকারী গ্রেফতার শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাচনে নৌকার পালে হাওয়া শিক্ষাক্ষেত্রে এখনও আমরা পিছিয়ে আছি : জগন্নাথপুরে পরিকল্পনামন্ত্রী কিশোরী পান্নাকে স্ত্রীর মতো ভোগ করতেন মোবাশ্বির, ক্ষোভ থেকে খুন! সাইবার ট্রাইব্যুনালে গোলাপগঞ্জের হাসিনা আহাদসহ আসামী ৪

মানবতার ফেরিওয়ালা ইমতিয়াজ কামরান তালুকদার সেচ্ছায় রক্তদান করলেন

প্রশাসন
  • সময় : শনিবার, ৮ মে, ২০২১
  • ১৩৬ ৯৮ বার পঠিত

 

 

বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি আজীবন সদস্য ও সিলেট ফ্রিডম ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও প্রধান পৃষ্ঠপোষক মানবতার ফেরিওয়ালা মো. ইমতিয়াজ কামরান তালুকদার সেচ্ছায় রক্তদান করলেন।তিনি বলেন আমি অসংখ্যবার স্বেচ্ছায় রক্ত দান করেছি।পৃথিবীতে যদি কেউ মানব তার বড় সূচক খুঁজে বের করতে চায়,তাহলে রক্তদান হলো সবচেয়ে বড় সূচক।সেচ্ছায় নিজে রক্তদান করি সেলেব্রিটি হওয়ার জন্য ব্লাড ডোনেট করি না। শুধু রোগীর মুখের স্নিগ্ধ হাসি আর ভালবাসা এবং রোগীর প্রশান্তিতে তাদের চোখে আনন্দের অশ্রু দেখতে ভাললাগে।এখানে সেলেব্রিটি হওয়ার ইচ্ছা নেই।দেশে করোনা সংক্রমণের পর লকডাউন শুরু হলে কর্মহীন হয়ে পড়েন নানা শ্রেণি-পেশার মানুষ। এতে করে অনেকের ঘরেই খাদ্য সংকট দেখা যায়।সিলেট নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে সমাজের সুবিধা বঞ্চিত মানুষের পাশে বিনামূল্যে মাস্ক-স্যানিটাইজার ও সাবান,খাদ্য সামগ্রী বিতরণ,নগদ অর্থ প্রদান,নিজ হাতে রান্না করে খাবার বিতরণ,
লিফলেট বিতরণ,রমজানে উপহার সামগ্রী বিতরণ,চা শ্রমিকদের উপহার সামগ্রী বিতরণ, ইফতার বিতরণ সহ নানা সমাজসেবা মূলক কার্যকম করেছেন।তিনি বলেন রোগীর আনন্দের অশ্রু দেখে নিজেকে পৃথিবীতে সব থেকে বেশি সুখী মানুষ মনে করি।আমি যখন একজন মুমূর্ষ রোগী কে রক্তদান করতে পারি তখন নিজেকে পৃথিবীতে সব থেকে বেশি সুখী মানুষ মনে করি।তখন কার অনুভূতি অসাধারন যা আসলে বলে বুঝানোর মত না।রোগীদের রক্তদান করতে গিয়ে আমি কারো ভাই হয়েছি কারো মামা হয়েছি কারো আপনজন হয়েছি আর কত কিছু বলে শেষ করা যাবে না।রোগীর মুখের স্নিগ্ধ হাসি দেখেছি, প্রশান্তিতে তাদের চোখে আনন্দের অশ্রু দেখেছি।যতদিন বেঁচে আছি এই কাজের সাথেই থাকতে চাই।আসুন আমরা নিজে রক্তদান করি এবং অন্যকে রক্তদানে উৎসাহিত করি।আপনার এক ব্যাগ রক্তে বাঁচতে পারে একটি প্রাণ তাহলে কেন করবেন না সেচ্ছায় রক্ত দান।

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
🔻 আরও পড়ুন